৬ বছরের সাজা থেকে বাঁচতে ১০ বছর পলাতক ছিলেন বগুড়ার আতাউর

প্রকাশিত: নভেম্বর ২০, ২০২১, ১১:৩৬ রাত
আপডেট: নভেম্বর ২০, ২০২১, ১১:৩৬ রাত
আমাদেরকে ফলো করুন

স্টাফ রিপোর্টার: দশ বছর পলাতক থাকার পর বগুড়ায় ৪টি প্রতারণা মামলায় ৬ বছরে সাজাপ্রাপ্ত আতাউর রহমান (৬০) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার (২০ নভেম্বর) বিকেল ৫টায় বগুড়া সদর থানা পুলিশ জয়পুরহাটের পাঁচবিবি উপজেলার নন্দীগ্রাম এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতার আতাউর শহরের লতিফপুর কলোনি এলাকার মৃত লুৎফর রহমানের ছেলে। পুলিশ জানিয়েছে, তার বিরুদ্ধে ১২ টি প্রতারণা মামলা রয়েছে৷ এরমধ্যে ৪টি মামলায় ২০১৪ ও ২০১৫ সালে আদালত আতাউরকে ৬ বছরের সাজা দেয়।
বিষয়গুলো নিশ্চিত করেছেন বগুড়া সদর থানার (উপ-পরিদর্শক) এসআই জাকির হোসেন। তিনি জানান, গ্রেফতার আতাউর বগুড়ার বেজোড়া এলাকায় ইটভাটার ব্যবসা করতেন। সেই ব্যবসাকে কেন্দ্র করে তিনি বিভিন্ন ব্যাংক ও ব্যক্তির কাছ থেকে মোট ২৫ লাখ টাকা ঋণ নেন। একপর্যায়ে তিনি টাকা পরিশোধ করতে ব্যর্থ হলে ওইসব ব্যাংক ও ব্যক্তিরা আতাউরের বিরুদ্ধে অর্থ প্রতারণার ১২ টি মামলা করে। মামলার পরে ২০১১ সাল থেকে তিনি পলাতক ছিলেন। বগুড়া থেকে পালিয়ে জয়পুরহাটে যেয়ে নিজের সব পরিচয় গোপন করে আতউর স্ত্রী ও সন্তান নিয়ে সেখানে বসবাস করছিলেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়