আগামী দুই সপ্তাহ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে: মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ

প্রকাশিত: জানুয়ারী ২১, ২০২২, ১১:৫৬ দুপুর
আপডেট: জানুয়ারী ২১, ২০২২, ১১:৫৬ দুপুর
আমাদেরকে ফলো করুন

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় আগামী দুই সপ্তাহ স্কুল-কলেজ বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

শুক্রবার (২১ জানুয়ারি) সকালে রাজধানীর মহাখালীতে করোনা সম্পর্কিত এক বিশেষ সংবাদ সম্মেলনে এমন তথ্য জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, করোনায় শনাক্তের হার প্রতিদিনই বাড়ছে, যা খুবই আশঙ্কাজনক। ইতোমধ্যে হাসপাতালগুলোর ৩৩ ভাগ বেড ভর্তি হয়ে গেছে। এবং সংক্রমণ বেড়েই চলছে। আশঙ্কার কথা হচ্ছে, সরকারের পক্ষ থেকে দেয়া ১১ দফা বিধিনিষেধ জনগণ মেনে চলছে না।

বাণিজ্য মেলার বিষয়ে মন্ত্রী জানান, বাণিজ্য মেলা ও পর্যটন কেন্দ্রেও টিকাসনদ দেখাতে হবে। এছাড়াও কর্মস্থানেও অর্ধেক জনবল নিয়ে চালানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে, শিগগিরই এই বিষয়ে নির্দেশনা দেয়া হবে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ছয় দফা জরুরি নির্দেশনা জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। 
নির্দেশনা গুলো হলো -

১. ২১ জানুয়ারি থেকে ৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত দেশের সব স্কুল, কলেজ বন্ধ থাকবে।

২. বিশ্ববিদ্যালয়গুলো নিজ নিজ ক্ষেত্রে অনুরূপ ব্যবস্থা নেবে।

৩. রাষ্ট্রীয়, সামাজিক, রাজনৈতিক, ধর্মীয় সমাবেশ ও অনুষ্ঠানগুলোতে ১০০ জনের বেশি মানুষের সমাবেশ করা যাবে না। এসব ক্ষেত্রে যারা যোগদান করবেন তাদের অবশ্যই করোনা টিকার সনদ অথবা ২৪ ঘণ্টার মধ্যে করা পিসিআর টেস্টের নেগেটিভ সনদ থাকতে হবে।

৪. সরকারি-বেসরকারি অফিস, শিল্প কারখানাসমূহে কর্মকর্তা/কর্মচারীদের অবশ্যই করোনা টিকার সনদ নিতে হবে। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ এ বিষয়ে দায়িত্ব বহন করবে। 

৫. বাজার, মসজিদ, বাসস্ট্যান্ড, লঞ্চঘাট, রেলস্টেশনসহ সবধরনের জনসমাবেশে অবশ্যই মাস্ক ব্যবহার করতে হবে। 
৬. বিধিনিষেধগুলো স্থানীয় প্রশাসন বা আইনশৃঙ্খলা বাহিনী বিষয়টি মনিটর করবে বলে নির্দেশনায় বলা হয়েছে। 

প্রসঙ্গত করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় কঠোর বিধিনিষেধের কথা সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রীর পক্ষ থেকে গত কয়েক দিন ধরেই বলা হচ্ছিল। মাস্ক ব্যবহার ও যানবাহনে চলাচল নিয়ে এরই মধ্যে ১১ দফা নির্দেশনা জারি করা আছে। আজ আরও ৬টি নির্দেশনা যোগ হলো। 

দেশে প্রথম করোনা ধরা পড়েছে ২০২০ সালের ৮ মার্চ।  এর ১০ দিন পর প্রথম মৃত্যু হয় কোভিডে।  ১৭ মার্চ থেকে স্কুল-কলেজ বন্ধ ঘোষণা করা হয়।  এর পর মাঝে কিছু দিন নিয়ন্ত্রণে থেকে সম্প্রতি সংক্রমণ আরও বেড়ে গেছে। এমতাবস্থায় নতুন নির্দেশনা জারি করল সরকার।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়