নারীদের অধিকার রক্ষায় ন্যায় পরায়ণতার তাগিদ

Online Desk Saju Online Desk Saju
প্রকাশিত: ০৪:৪০ পিএম, ২১ নভেম্বর ২০২০

বিবাহ বিচ্ছেদ এবং নারী নির্যাতন মামলাগুলি আরো বলিষ্ঠভাবে এবং ন্যায় পরায়ণতার সাথে পরিচালনা করতে পারলে গ্রামের অসহায় নিরিহ নারীদের অধিকার রক্ষার ক্ষেত্রে গ্রাম আদালত অনেক বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখতে পারবে। 

সম্প্রতি ঢাকা জেলার সাভার উপজেলার আমিন বাজার ইউনিয়নে উত্তরা সরকারী প্রাইমারী স্কুলে নারী নির্যাতন, পারিবারিক কলহ, শিশু অধিকার, নির্যাতিত নারীদের ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠা ইত্যাদি ক্ষেত্রে গ্রাম আদালতের গৃহীত পদক্ষেপ ও ভূমিকা মিডিয়ার নিকট তুলে ধরার উদ্দেশ্যে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন আলোচকরা। 

এর আগে, ইউএনডিপির অর্থায়নে পরিচালিত মানবধিকার বিষয়ক প্রকল্পের আওতায় “মুক্তি নারী ও শিশু উন্নয়ন সংস্থা” ফ্যাক্ট ফাইন্ডিংস ও মিডিয়া রিপোটিং কর্মশালা আয়োজন করে। অনুষ্ঠানের প্রধান আলোচক ছিলেন মুক্তি নারী ও শিশু উন্নয়ন সংস্থা’র প্রোগ্রাম ম্যনেজার মো: আবদুল ওয়াহেদ। বক্তৃতা করেন জেন্ডার বিশেষজ্ঞ এন. আর. মুশফিকা লাইজু। কর্মশালায় ঢাকা জেলার সাভার উপজেলার আমিন বাজার ও কাউন্দিয়া ইউনিয়নের গ্রাম আদালতের মোট ৫টি মামলার বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য উপাত্ত তুলে ধরা হয়। 

বিবাহ বিচ্ছেদ এবং নারী নির্যাতনের মামলাগুলির ভুক্তভোগীর পক্ষে এবং নির্যাতনকারীর বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নেয়া নিদের্শনা পাওয়া যায়নি। স্বামীর নির্যাতনের কারণে কোন নারী বিবাহ বিচ্ছেদ চাইলে তা আদালতে অনুমোদিত হচ্ছে। কিন্তু কি কারণে একজন নারী নির্যাতনের স্বীকার হয়ে আদালতে বিবাহ বিচ্ছেদ মামলা করছে তার অনুসন্ধান যথাযথ হচ্ছে না। ফলে নির্যাতনকারী সব সময় আড়ালেই থেকে যাচ্ছে।


আরও পড়ুন