রেলে নিয়োগ পরীক্ষা নিয়ে বিক্ষোভ, যাত্রীবাহী ট্রেনে অগ্নিসংযোগ

প্রকাশিত: জানুয়ারী ২৬, ২০২২, ০৯:২৪ রাত
আপডেট: জানুয়ারী ২৬, ২০২২, ০৯:২৪ রাত
আমাদেরকে ফলো করুন

রেলে নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ ভারতের বিহারে চাকরিপ্রার্থীরা একটি যাত্রীবাহী ট্রেনে আগুন ধরিয়ে দিয়েছেন। এ সময় তারা রেলপথ অবরোধ করে স্টেশনে ভাঙচুরও চালিয়েছেন। ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি বুধবার এক প্রদিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।
ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত কয়েকদিন ধরে বিহারে রেলওয়ে রিক্রুটমেন্ট বোর্ডের নন-টেকনিক্যাল পপুলার ক্যাটাগরির গ্রুপ ডি কর্মচারী নিয়োগের পরীক্ষার ফলাফলে অনিয়মের অভিযোগে বিক্ষোভ চলছিল।
তবে ২৬ জানুয়ারি ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে এই বিক্ষোভ তীব্র আকার নেয়। বুধবার দুপুর থেকে বিহারের গয়া স্টেশনে সহিংস বিক্ষোভ শুরু হয়। বিক্ষোভকারীরা একটি যাত্রীবাহী ট্রেনে আগুন ধরিয়ে দেয়। ঘটনাস্থলে পুলিশ আসলেও তারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ হয়। বিক্ষোভকারীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট পাটকেল ছুড়তে থাকে। স্টেশনেও ভাঙচুর চালায়। অবরোধ করে রাখে রেলপথ। এতে রেল চলাচল চরম ব্যাহত হয়েছে বলে এনডিটিভি জানিয়েছে।
বিক্ষোভের মূল কারণ হিসেবে আন্দোলনাকারীরা জানান, ২০১৯ সালে বিজ্ঞপ্তি জারি হলেও এ পর্যন্ত দ্বিতীয় পর্যায়ের পরীক্ষা নিয়ে জানায়নি কর্তৃপক্ষ। এমনকি প্রথম পরীক্ষার ফলও প্রকাশ হয়নি। সরকার তাদের ‘ভবিষ্যত নিয়ে খেলছেন’ বলেও অভিযোগ করেছেন তারা।
তবে বর্তমানে সেখানকার পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এসেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।
এদিকে এই বিক্ষোভের প্রসঙ্গ তুলে বিহার সরকার এবং কেন্দ্র সরকারের তীব্র সমালোচনা করেছেন রাহুল গান্ধী। বুধবার ওই ঘটনার একটি ভিডিও পোস্ট করে খুদে ব্লগিং সাইট টুইটে তিনি লিখেছেন, প্রত্যেক তরুণের নিজেদের অধিকারের জন্য সোচ্চার হওয়ার স্বাধীনতা রয়েছে। আর এটা যারা ভুলে যান, তাদের মনে রাখা উচিত, দেশে এখনও প্রজাতন্ত্র আছে, গণতন্ত্র ছিল, গণতন্ত্র থাকবে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়