‍সেওতি’র সিনেমা’র আজ ভারতে ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার

প্রকাশিত: নভেম্বর ২৪, ২০২২, ০৭:০৩ বিকাল
আপডেট: নভেম্বর ২৪, ২০২২, ০৭:০৩ বিকাল
আমাদেরকে ফলো করুন

অভি মঈনুদ্দীন : ফারিহা শামস সেওতি এমন একজন অভিনেত্রী, যার অধিকাংশ সময়ই কাটে দেশের বাইরে কুয়েতে। সেখানে স্বামী সন্তান নিয়েই তার সুখের সংসার। তবে ভালো গল্পে কাজ করার প্রস্তাব পেলে তিনি সময় নিয়ে দেশে আসেন। ঠিক তেমনি একটি ভালো গল্পের সিনেমায় তিনি কাজ করতে এসেছিলেন দেশে। সিনেমার নাম ‘নকশী কাঁথার জমিন’। ২০১৮-২০১৯ সালের সরকারী অনুদানে নির্মিত এই সিনেমাটি নির্মাণ করা হয়েছে কথা সাহিত্যিক হাসান আজিজুল হকের উপন্যাস ‘বিধবাদের কথা’ অবলম্বনে। সিনেমাটির গল্পের অন্যতম প্রধান একটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন সেওতি।

আজই তিনি কুয়েত থেকে ভারতের গোয়া’তে পৌঁছেছেন। কারণ সেখানে গতকাল থেকে শুরু হতে যাচ্ছে বিশ্বের দশটি চলচ্চিত্র উৎসবের একটি। অর্থাৎ গতকাল থেকে শুরু হচ্ছে ‘ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফ্যাস্টিভ্যাল অব ইণ্ডিয়া’। আর এই উৎসবের প্রথম দিনেই সেওতি অভিনীত ‘নকশী কাঁথার জমিন’ সিনেমাটির ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হবে। সেওতি জানান এই উৎসবে একটি ক্যাটাগরিতেও মনোনীত হয়েছে তার অভিনীত সিনেমাটি। শুধু আগামীকালই নয় তারপর দিনও একই জায়গায় সিনেমাটির প্রদর্শনী হবে।

‘নকশী কাঁথার জমিন’ সিনেমাটিতে অভিনয় প্রসঙ্গে সেওতি বলেন,‘ এর আগেও আকরাম ভাইয়ের সিনেমাতেও অভিনয় করেছি। তার নির্দেশনায় কাজ করতে আমি ভীষণ স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। আমি এই সিনেমার অন্যতম প্রধান চরিত্র সালেহা চরিত্রটিতে অভিনয় করেছি। গোয়াতে এই আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে আমাকে নিমন্ত্রণ করা হয়েছে এবং আমি অংশগ্রহন করছি-এটা আমার জন্য ভীষণ সম্মানের এবং গর্বের। আমার অভিনীত চতুর্থ এই সিনেমার ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ারে আমি থাকতে পারছি-এটা নিঃসন্দেহে আমার জন্য ভীষণ ভালো লাগারও বটে। সিনেমাটিতে আমি আমার চরিত্রটি যথাযথভাবে ফুটিয়ে তোলার জন্য অনেক কষ্ট করেছি, শ্রম দিয়েছি। দর্শকের ভালো লাগলেই সে কষ্ট স্বার্থক। নকশী কাঁথার জমিন সিনেমার পুরো টিমের জন্য শুভ কামনা রইলো।’

সেওতি অভিনীত প্রথম সিনেমা আকরাম খানের ‘পুত্র’। পরবর্তীতে তিনি নূর ইমরান মিঠুর ‘কমলার রকেট’ এবং মাসুদ হাসান উজ্জ্বলের ‘উনপঞ্চাশ বাতাস’ সিনেমায় অভিনয় করেন। তবে সেওতি নাটকেই অভিনয় করেছেন বেশি। এই মুহুর্তে তার আগ্রহ বেশি ওয়েব ফিল্ম, ওয়েব সিরিজ, সিনেমা ও বিজ্ঞাপনে কাজ করা। আর এখন কাজের জন্য দেশে এসেও নিয়মিত হবার ইচ্ছে রয়েছে তার।

সেওতি জানান তিনি আগামী ২৮ নভেম্বর কুয়েত ফিরে যাবেন। সেওতির স্বামী কাতার এয়ারলাইনসের অ্যারোনেটিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার। তার দুই ছেলে সাহির ও তাইসির। গাজীপুরের কালিগঞ্জে তার বাড়ি। জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃ-তত্ত্ব বিষয়ে অনার্স মাস্টার্স সম্পন্ন করেন। 

 

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়