নাটোরে বাস খাদে পড়ে মা-মেয়ে নিহত

Online Desk Online Desk
প্রকাশিত: ০৩:২৭ পিএম, ২৬ অক্টোবর ২০২০

নাটোরের লালপুরে চঞ্চল পরিবহনের যাত্রীবাহী একটি বাস খাদে পড়ে মা-মেয়ে নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন অন্তত ১০ যাত্রী।


আহতদের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।  
সোমবার (২৬ অক্টোবর) সকাল ১০টার দিকে লালপুর উপজেলার নাটোর-পাবনা মহাসড়কের গোধরা এলাকাই এ দুর্ঘটনা ঘটে।  
নিহতরা হলেন- পাবনা জেলার চাটমোহর উপজেলার নড়াইখালি গ্রামের আব্দুল মান্নানের স্ত্রী জোৎসনা বেগম (৫০) ও তার মেয়ে রোজিনা খাতুন (৩২)। তারা মা-মেয়ে গলার চিকিৎসা করানোর জন্য নাটোর মিশন হাসপাতালে যাচ্ছিলেন বলে জানা গেছে। ওই দুর্ঘটনায় নিহত জোৎসনার স্বামী আব্দুল মান্নান আহত হয়েছেন।  

বড়াইগ্রামের বনপাড়া হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খন্দকার শফিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে জানান, সকাল আনুমানিক ১০টার দিকে চঞ্চল পরিবহনের যাত্রীবাহী একটি বাস পাবনা থেকে রাজশাহীর উদ্দেশে যাচ্ছিল। পথে নাটোর-পাবনা মহাসড়কের গোধরা এলাকায় এলে বাসটি অপর একটি বাসকে অতিক্রম করার চেষ্টা করে। এ অবস্থায় চালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেললে বাসটি   রাস্তার পাশে খাদে পড়ে যায়। এসময় জোৎসনা বেগম নামে এক যাত্রী ঘটনাস্থলেই মারা যান এবং তার মেয়ের রোজিনা খাতুন গুরুতর আহত হন। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে বনপাড়া পাটোয়ারী ক্লিনিকে নিলে দায়িত্বরত চিকিৎসক রোজিনাকে মৃত ঘোষণা করেন। এছাড়াও বাসের আরো ১০ যাত্রী আহত হন। তাদের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।  

ওসি আরো বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে খাদে পড়া বাসটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। তবে বাসের চালক ও হেলপার পলাতক রয়েছে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলে জানান তিনি।