শেরপুরে আয়াকে ধর্ষণ ক্লিনিক ম্যানেজার গ্রেফতার

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২২, ১১:৩০ রাত
আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২২, ১১:৩০ রাত
আমাদেরকে ফলো করুন

শেরপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি: বগুড়ার শেরপুরে ভিশন ল্যাব এন্ড ডায়াগনস্ট্রিক সেন্টারের ব্যবস্থাপকের (ম্যানেজার) বিরুদ্ধে একই প্রতিষ্ঠানের আয়াকে (৩৫) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় আজ সোমবার দুপুরে ধর্ষণের শিকার ওই আয়া বাদি হয়ে শেরপুর থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ অভিযুক্ত ম্যানেজার আব্দুল আলীমকে (৪৫) গ্রেফতার করেছে। সে উপজেলার গাড়ীদহ ইউনিয়নের কালশিমাটি গ্রামের আব্দুস সামাদের ছেলে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, শহরের হাসপাতাল রোডে অবস্থিত ভিশন ল্যাব এন্ড ডায়াগনস্ট্রিক সেন্টারে ব্যবস্থাপক (ম্যানেজার) পদে চাকরি নেন আব্দুল আলীম। সেখানে আয়া পদে ধর্ষণের শিকার ওই নারী চাকরি করতেন। একপর্যায়ে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। সেইসঙ্গে তাকে বিয়ের প্রলোভন দেয় আব্দুল আলীম। এমনকি এই প্রলোভন দিয়ে সে শহরের দ্বারকিপাড়াস্থ একটি বাসায় নিয়ে তাঁকে দিনের পর দিন ধর্ষণ করে। কিন্তু ওই আয়া তাকে বিয়ের জন্য বললে সে নানা তালবাহানা করতে থাকে। একপর্যায়ে বিয়ে ও স্ত্রীর মর্যাদা পেতে ব্যর্থ হয়ে অবশেষে আইনের আশ্রয় নেন ওই আয়া ।

ওই নারী বলেন, তার স্বামী মারা গেছেন। তার চাকরির সামান্য বেতনের টাকা দিয়েই সংসার চলে। এই আর্থিক অস্বচ্ছলতার সুযোগ নেয় ক্লিনিকের ম্যানেজার আব্দুল আলীম। কিন্তু প্রথমে তার প্রস্তাবে সাড়া দেননি। কিন্তু ম্যানেজারের কথা না শোনলে তাকে চাকরি থেকে বাদ দেওয়ার হুমকি দেওয়া হয়। তাছাড়া ম্যানেজারের স্ত্রী অসুস্থ হওয়ায় তাকে সে বিয়ের প্রস্তাব দেয় বলে জানায়। পরে এর সূত্রধরে শারিরীক সম্পর্ক গড়েন। অথচ বিয়ের কথা বললেই মানসিক নির্যাতন চালাতে থাকে সে। ফলে প্রতারক ওই প্রেমিকের বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা দায়ের করেন বলে দাবি করেন তিনি।

শেরপুর থানার ওসি আতাউর রহমান খন্দকার বলেন, ওই ধর্ষণের ঘটনায় মামলা নেওয়া হয়েছে। সেইসঙ্গে মামলায় অভিযুক্তকেও গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এছাড়া ধর্ষণের শিকার নারীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য বগুড়ায় শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পাশাপাশি গ্রেপ্তার হওয়া আব্দুল আলীমকে সোমবারই বগুড়ায় আদালতে পাঠানো হয়েছে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়