ঠাকুরগাঁওয়ে ভুয়া আইনজীবী পিতাসহ গ্রেফতার

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২২, ০৭:২৫ বিকাল
আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২২, ০৭:২৫ বিকাল
আমাদেরকে ফলো করুন

ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধি: ঠাকুরগাঁওয়ে আইনজীবী সেজে জনসাধারণের সাথে প্রতরণার অভিযোগে মো: জালাল উদ্দীন (৪০) ও তার পিতা মো: মফিজ উদ্দীনকে (৬২) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল বৃহস্পতিবার পৌর শহরের আদালত চত্ত্বর থেকে তাদের আটক করে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। এ বিষয়ে জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক এড. ইমরান হোসেন চৌধুরী বাদি হয়ে পিতা ও ছেলের বিরুদ্ধে সদর থানায় মামলা করেছেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, হরিপুর উপজেলার নন্দগ্রাম (যাদুরানী বাজার) এলাকার মো: ইমরান আলী ও তার পিতা মফিজ উদ্দীন দীর্ঘদিন ধরে আইনজীবীর পরিচয় দিয়ে আসছিলো। তারা নিজেদের লাইসেন্সধারী আইনজীবী পরিচয় দিয়ে একাধিক মানুষের সাথে প্রতারণা করছিলো। ওই দিনও তারা নিজেদের আইনজীবী বলে ভিজিটিং কার্ড বিভিন্ন মানুষকে দিয়ে প্রতরণা করতে থাকে। ইতোপূর্বে এ জাতীয় অভিযোগের প্রেক্ষিতে জেলা আইনজীবী সমিতির এক সভায় মামলার ২নং আসামী মফিজ উদ্দীন ও তার ছোট ভাই আজিজুর রহমানকে প্রতরক, দালাল, টাউট এবং বাটপার ঘোষনা করে তাদের বিরুদ্ধে আদালত চত্তরে প্রবেশের উপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয় কিন্তু ঘটনার দিন ইমরান ও তার পিতা আবারও আদালত চত্ত্বরে আগের ন্যায় প্রতারণা করতে থাকে। এমন সময় জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক তাকে তার বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে বলতে গেলে চড়াও হয়ে মারপিট করে গুরুতর জখম করে। এ সময় অন্যান্য আইনজীবীরা তাকে থামাতে গেলে সে ছুরি নিয়ে আইনজীবীদের উপর হামলা করে আহত করে। আহতদের উদ্ধার করে জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ সময় জেলা আইনজীবী সমিতির সদস্যরা ছেলে ও বাবাকে আটক করে থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়