আদমদীঘিতে ১৩ বছর আত্মগোপনে থেকেও রক্ষা পেল না ভোলা

প্রকাশিত: মে ১৫, ২০২২, ০২:৫০ দুপুর
আপডেট: মে ১৫, ২০২২, ০২:৫০ দুপুর
আমাদেরকে ফলো করুন

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি : হত্যা ও চুরি মামলায় আদালত থেকে জামিনে মুক্তি পেয়ে নিজের নাম ঠিকানা পরিবর্তন করে দীর্ঘ ১৩ বছর আত্মগোপনে থেকেও রক্ষা পেল না বগুড়ার আদমদীঘির ভোলা (৪৮)। গতকাল ১৪ মে শনিবার রাত ১১ টায় নওগাঁ সদরের ছোট যমুনা নদীর হরিপুর বেড়ি বাঁধ থেকে তাকে গ্রেফতার করে আদমদীঘি থানা পুলিশ। 

আদমদীঘি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জালাল উদ্দীন জানান, আদমদীঘি থানায় ২০০৩ সালে আদমদীঘি উপজেলা উথরাইল গ্রামের অকিম উদ্দিনের ছেলে ভোলার বিরুদ্ধে একটি হত্যা ও চুরি মামলা হয়। এ মামলায় সে গ্রেফতার হয়ে জেল হাজতে থাকে। ২০০৮ সাথে ভোলা আদালত থেকে জামিনে মুক্তি পেয়ে পলাতক হয়। তার বিরুদ্ধে আদালত কর্তৃক গ্রেফতারি পরোয়ানাজারি হয়। 

ভোলা নিজের নাম ও ঠিকানা পরিবর্তন করে মাসুদ নাম ধারণ করে তার স্ত্রী সন্তানসহ নওগাঁ সদরের বক্তারপুর ইউনিয়নের ছোট যমুনা নদীর হরিপুর বেড়ি বাঁধে ঘর নির্মাণ করে সেখানে দীর্ঘ ১৩ বছর যাবত আত্মগোপনে বসবাস করে আসছিল। 

এদিকে মামলা থেকে বাঁচতে দীর্ঘ ১৩ বছর যাবত তার নাম ও ঠিকানা পরির্বতন করে আত্মগোপনে থেকেও রক্ষা পেল না পলাতক আসামি মাসুদ ওরফে ভোলা। 

গোপন সংবাদের ভিক্তিতে গতকাল শনিবার রাতে আদমদীঘি থানার উপ পরিদর্শক আবু হাসান ও তারেক ফোর্সসহ অভিযান চালিয়ে তাকে ওই স্থান থেকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়