বেহাল দশা সিলেট শেওলা স্থলবন্দর সড়ক ৩ কিলোমিটার যান চলাচলের অনুপযোগী

প্রকাশিত: জুলাই ২৭, ২০২২, ০৬:৪৭ বিকাল
আপডেট: জুলাই ২৭, ২০২২, ০৬:৪৭ বিকাল
আমাদেরকে ফলো করুন

সিলেট প্রতিনিধি: সিলেটের শেওলা স্থলবন্দর থেকে শেওলা সেতু পর্যন্ত ৩ কিলোমিটার যান চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। সড়কটি ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়ায় ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান চালকরা শেওলা স্থলবন্দর যেতে চান না। তাই বাধ্য হয়ে ব্যবসায়ীরা আমদানি-রপ্তানি বন্ধ করে দিচ্ছেন। এই বেহাল দশার কারণে রাজস্ব আদায় কমে আসার কথা স্বীকার করেন কাস্টমস কর্মকর্তা।

বন্দরের আমদানি-রপ্তানিকারকরা বলছেন, এ বন্দরে দিয়ে দিনের পর দিন আমদানি-রপ্তানি কমছে। সড়ক ও জনপথ বিভাগের (সওজ) উদাসীনতায় সরকার কোটি কোটি টাকা রাজস্ব হারাচ্ছেন। ব্যবসায়ীরাও পড়ছেন চরম বিপাকে।

সিলেটের আমদানি-রপ্তানি ব্যবসায়ী নুরুল আম্বিয়া জানান, পণ্য আমদানি-রপ্তানিতে এ বন্দরের ব্যবসায়ীরা সরকারকে বছরে শত কোটি টাকার বেশি রাজস্ব ও ভ্যাট দিয়ে আসছেন। কিন্তু পণ্য রাখতে শেড নেই। সড়কের অবস্থাও খারাপ। তাই বাধ্য হয়ে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ রাখছি। কোনো গাড়ি এ সড়ক দিয়ে আসতে চায় না। মালামাল পরিবহন করতে না পারলে ব্যবসা করা সম্ভব নয়। সিলেট চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজের সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি ও সিলেট কয়লা আমদানিকারক গ্রুপের সভাপতি চন্দন সাহা জানান, এ সড়ক নিয়ে বলার কিছু নেই। সওজকে সড়কটি সংস্কার করে যান চলাচলের উপযোগী করে দেওয়ার কথা বললে তারা তালবাহানা করেন। সড়কের বেহাল অবস্থার জন্য আমরা ব্যবসা করতে পারছি না।

বেহাল সড়কের কারণে আমদানি-রপ্তানি কম হচ্ছে স্বীকার করে শেওলা স্থলবন্দরের রাজস্ব কর্মকর্তা কামরুল ইসলাম জানান, বন্দরটি সচল রাখতে কাজ করছি। এ মুহূর্তে ব্যবসায়ীসহ বিভিন্ন সরকারি সংস্থার সঙ্গে সড়কটি নিয়ে মতবিনিময় করছি।

এ বিষয়ে সড়ক ও জনপথ বিভাগ সিলেটের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, সড়কটি দিয়ে পাথর-কয়লাসহ বিভিন্ন ভারী মালামাল আমদানি-রপ্তানির ফলে খারাপ হয়ে গেছে। কিছুদিন আগেও সড়কটি সংস্কার করেছি। অতিরিক্ত ওজনের কারণে সড়কটিতে গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। তিনি বলেন, বন্যায় গোলাপগঞ্জ-চারখাই সড়কটি ভেঙে যাওয়ায় আমরা এ সড়কটি যানবাহন চলাচলের উপযোগী করছি। কাল-পরশু থেকে শেওলা স্থলবন্দর সড়কটিও যানবাহন চলাচলের উপযোগী করে তুলতে কাজ শুরু করবো। 

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়