অ্যাশেজের পঞ্চম টেস্টেও অস্ট্রেলিয়ার জয়

প্রকাশিত: জানুয়ারী ১৬, ২০২২, ০৬:৩৭ বিকাল
আপডেট: জানুয়ারী ১৬, ২০২২, ০৬:৩৭ বিকাল
আমাদেরকে ফলো করুন

অ্যাশেজ সিরিজের প্রথম তিন টেস্টে জিতে সিরিজ নিশ্চিত করেছিল অস্ট্রেলিয়া। পঞ্চম টেস্টেও জিতল প্যাট কামিন্স বাহিনী। রোববার (১৬ জানুয়ারি) তাদের জয় ১৪৬ রানে। চতুর্থ টেস্টটি ড্র হয়।

২৭১ রানের টার্গেটে খেলতে নেমে দ্বিতীয় ইনিংসে ১২৪ রানে থামে ইংল্যান্ড। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৬ রান করেন জ্যাক ক্রাউলি। বাকিদের মধ্যে ররি বার্নস ২৬, জো রুট ১১ ও ডেভিড মালান ১০ রান করেন। অজিদের হয়ে তিনটি করে উইকেট নেন প্যাট কামিন্স, স্কট বোল্যান্ড ও ক্যামেরুন গ্রিন। 

এর আগে দ্বিতীয় ইনিংসে ১৫৫ রান করে অস্ট্রেলিয়া। ইংল্যান্ডের দ্বিতীয় ইনিংসের মতো এ ইনিংসেও অস্ট্রেলিয়ার হয়ে কেউই হাফসেঞ্চুরি করতে পারেননি। সর্বোচ্চ ৪৯ রান আসে অ্যালেক্স ক্যারের ব্যাট থেকে।

অজিদের হয়ে ডেভিড ওয়ার্নার আউট হন শূন্য রানে। উসমান খাজা ১১ ও লাবুশেন ৫ রান করে আউট হন। ইংল্যান্ডের হয়ে ছয় উইকেট পান মার্ক উড। তিন উইকেট নেন স্টুয়ার্ট ব্রড। ইংলিশদের ১৮৮ রানে গুটিয়ে দেয় স্বাগতিক দল। অজিদের হয়ে ৪ উইকেট নেন কামিন্স। ৩ উইকেট পান মিচেল স্টার্ক। ইংল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৬ রান করেন ওকস। রুটের ব্যাট থেকে ৩৪ ও স্যাম বিলিংসের ব্যাট থেকে ২৯ রান আসে।

প্রথম ইনিংস শেষে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ দাঁড়ায় ৩০৩ রান। বৃষ্টিবিঘ্নিত প্রথম দিনে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ছিল ৬ উইকেটে ২৪১ রান। করোনার কারণে চতুর্থ টেস্ট না খেলা ট্রাভিস হেড পঞ্চম টেস্টে সুযোগ পেয়েই হাঁকিয়েছেন শতক। তবে চতুর্থ টেস্টের নায়ক উসমান খাজা এই ইনিংসে ব্যর্থ হন।

এ ম্যাচে টস জিতে আগে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেয় ইংল্যান্ড। ওলি রবিনসন ও স্টুয়ার্ট ব্রডের নতুন বলের আক্রমণের সামনে অসহায় হয়ে পড়ে অজিরা। ১০ ওভারের ভেতরে তিনটি উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে স্বাগতিকরা। প্রথম ইনিংসেও ওপেনিংয়ে ব্যর্থ ছিলেন ওয়ার্নার। ২২ বল খেলে ০ রান করে আউট হন তিনি, চতুর্থ টেস্টের নায়ক বনে যাওয়া খাজা আউট হন মাত্র ৬ রান করে। চতুর্থ উইকেটে ৭১ রানের জুটি গড়েন হেড ও মারনাস লাবুশেন। ওয়ানডে মেজাজে ব্যাটিং করেন তারা দুজনই। ৫৩ বলে ৪৪ রানের ইনিংস খেলে থামেন লাবুশেন। ব্রডের এক অসাধারণ ডেলিভারিতে পুরোপুরি পরাস্ত হয়ে মাঠ ছাড়েন এই ডানহাতি ব্যাটার।

লাবুশেন ফিরলেও শতক হাঁকান ফর্মের তুঙ্গে থাকা হেড। হেডের ব্যাট থেকে আসে ১০১ রান। তার ইনিংসে ছিল ১২টি চার। ক্রিস ওকসের শিকার হওয়ার আগে ক্যামেরুন গ্রিনের সঙ্গে ১২১ রানের জুটি গড়েন হেড। অর্ধশতক হাঁকিয়ে গ্রিন থামেন ৭৪ রানে। ইংল্যান্ডের হয়ে তিনটি করে উইকেট পান স্টুয়ার্ট ব্রড এবং মার্ক উড।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়